রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ০৮:৪৯ অপরাহ্ন

দৌলতপুরে শিশু বলাৎকারের অভিযোগে মাদ্রাসা শিক্ষক আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক / ৯৮ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম: শনিবার, ১৩ মে, ২০২৩, ৫:৫১ অপরাহ্ন

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে আব্দুল্লাহ (১০) নামে এক শিশু বলাৎকারের অভিযোগে মাদ্রাসা শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ। আজ শনিবার দুপুর ১২টার দিকে সিরাজুল হক (২৫) নামে ওই মাদ্রাসা শিক্ষককে আটক করা হয়। সে দৌলতপুর উপজেলার হোসেনাবাদ ফজলুল হক উলুম বহুমুখী মাদ্রাসার শিক্ষক ও নাটোর জেলার বড়বাড়িয়া গ্রামের আইনাল হকের ছেলে।

বলাৎকারের শিকার ওই শিশুর পরিবারের অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, হোসেনাবাদ ফজলুল হক উলুম বহুমুখী মাদ্রাসার দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্র আব্দুল্লাহকে শুক্রবার দিবাগত রাত রাত ১২টার দিকে নিজ কক্ষে ডেকে নেয় মাদ্রাসার শিক্ষক সিরাজুল হক। এসময় তাকে জোরপূর্বক বলাৎকার করে ঘটনাটি কাউকে না বলার জন্য হুমকি দেয় ওই শিক্ষক। পরে আজ শনিবার সকালে বলাৎকারের শিকার ওই শিশু তার পিতা রাকিকুল ইসলামকে ঘটনাটি জানালে সে দৌলতপুর থানা পুলিশকে জানায়।

পরে দৌলতপুর থানা পুলিশ হোসেনাবাদ ফজলুল হক উলুম বহুমুখী মাদ্রাসা থেকে শিক্ষক সিরাজুল হককে আটক করে থানায় নেয়।

এ বিষয়ে হোসেনাবাদ ফজলুল হক উলুম বহুমুখী মাদ্রাসার সুপার শামসুজ্জোহা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এমন ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে শিক্ষক সিরাজুল হককে আটক করে থানা নিয়ে গেছে পুলিশ।

দৌলতপুর থানার ওসি মজিবুর রহমান বলেন, হোসেনাবাদ ফজলুল হক উলুম বহুমুখী মাদ্রাসায় শিশু বলাৎকারের ঘটনায় অভিযুক্ত শিক্ষককে আটক করে থানায় নিয়ে জিঞ্জাসাবাদ করা হচ্ছে। এখনও অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে এ ঘটনায় মামলা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Comments are closed.

এ জাতীয় আরো খবর...
এক ক্লিকে বিভাগের খবর